ড্রপশিপিং কি? কিভাবে শুরু করবেন? কত উপার্জন সম্ভব? (all in one tune)

Dropshipping কি?
সোজা কথায় আপনার নিজের স্টোরে কোন প্রোডাক্টের ইনফো রাখলেন এরপর কাস্টমার আপনার স্টোরে ঢুকে সেই প্রোডাক্টটি কিনতে অর্ডার করল এবার আপনি একজন সাপ্লায়ারের নিকট থেকে উক্ত পন্যটি কিনে তা আপনার কাস্টমারের নিকট পাঠিয়ে দিলেন এই প্রসেসটাই ড্রপশিপিং। এবার আসি লাভের কথায়, ধরুন পন্যটি আপনার স্টোরে আপনি $৫০ এ বিক্রয় করতে চাচ্ছেন কিন্তু প্রোডাক্টটির আসল দাম $৩০ এবং কাস্টমার $৫০ দামেই প্রোডাক্টটি কিনবে আপনার স্টোর থেকে তাহলে আপনার লাভ কত হল? হুমম $২০, এটাই আপনার লাভ।
আরো সোজা কথায় আপনি কারো কাছ থেকে অর্ডার নেবেন তারপর সাপ্লায়ারের কাছ থেকে কিনবেন এবং অর্ডারকারীকে পন্যটি সরবরাহ করবেন এটাই আসলে ড্রপশিপিং।
Dropshipping করার জন্য কি কি প্রয়োজন?
Dropshipping বিজনেস করার জন্য আপনার কিছু জিনিস প্রয়োজন পরবেঃ
১। আপনার নিজের একটা অনলাইন স্টোর লাগবে। সেজন্য ১টা ডোমেইন ও একটা হোস্টিং দরকার।
২। আপনি চাইলে Woocommerce ব্যবহার করতে পারেন (WordPress এর একটা প্লাগিন এটা এবং ফ্রিতে পাবেন)
অথবা Shopify ব্যবহার করতে পারেন Cloudbased সার্ভিস এটার জন্য মাসে মাসে ডলার খরচ করা লাগবে।
৩। আপনার একটা পেমেন্ট গেটওয়ে লাগবে, paypal সবচেয়ে ভাল solution কিন্তু আমাদের উক্ত সোনার হরিণটি নাই বিধায় আমরা 2 checkout ব্যবহার করতে পারি। (পাসপোর্ট বা ড্রাইভিং লাইসেন্স দরকার এই ক্ষেত্রে)
৪। ভাল এবং হট প্রোডাক্ট খুঁজে বের করতে হবে। আমরা alibaba.com বা aliexpress.com বা Ebay.com কে ব্যবহার করতে পারি এবং সেখান থেকে Product related ইনফো নিয়ে আমাদের স্টোরে দিতে পারব।
৫। ভাল মানের ভেন্ডর findout করতে হবে যেন অর্ডার করলে সে রেসপন্স করে দ্রুত এবং চাহিদা মাফিক product নির্দিস্ট ঠিকানায় সরবরাহ করে।

সকলের মনে এবার একটা প্রশ্ন আচ্ছা নিশ কিভাবে বের করব বা কোন নিশ ভাল হবে?
উঃ প্রথমত আমাদের জানতে হবে নিশ কি? আমার মতে বা বেশিরভাগ মানুষের মতে নিশ মানে #উপযুক্ত আর নিশ মার্কেট মানে উপযুক্ত বাজার। ধরুন পোষাক শিল্প যাকে আমরা Garments Industry বলি এবং এটা apperal niche বলতে পারি।

#Dropship এর জন্য নিশ কিভাবে খুঁজে বের করব?
উঃ ধরুন আপনি Travel BackPack নিয়ে আপনার Store ready করতে চাচ্ছেন।
#এবার Google keyword planner এর সহয়তা নিতে পারেন। আপনার নিশের কিওয়ার্ড লিখে সার্চ করে দেখতে পারেন Search Volume কি পরিমান আছে(Monthly ১০০০-৫০০০ এর মধ্যে সার্চ ভলিউম থাকাটা আপনার জন্য ভাল -এটা আমার নিজস্ব মতামত) এরপর দেখবেন Suggested bid, এটা যেন অনেক high না হয় খেয়াল রাখতে হবে।
#AMAZON_SEARCH: অাপনার নিশের কিওয়ার্ড টা লিখে amazon e search করে দেখবেন সেখানে কি পরিমান Product আপনার নিশের উপর আছে, যেগুলো আছে সেগুলো কি পরিমান বিক্রি হচ্ছে? যদি দেখেন যে buying ration কম ও প্রোডাক্টের সংখ্যাটাও নগন্য তবে এড়িয়ে যান এই নিশ।
#Reddit.com এগিয়ে আপনার নিশের নাম লিখে সার্চ করে দেখবেন কি পরিমান Sub reddit আছে এবং সেগুলোতে কেমন আলোচনা হয়। যদি এখানেও কম পান তবে এড়িয়ে যান। লক্ষনীয় বিষয় যদি দেখেন নিয়মিত চর্চা হচ্ছে আপনার নিশ নিয়ে সেক্ষেত্রে এগিয়ে যান।
আপনার সকলের সুবিধার্থে আমি কিছু নিশের নাম দিয়ে দিচ্ছিঃ
১। MMA
২। Ketogenic diet
৩। Crossfit
৪। Backpack
৫। Novelty Socks
Niche Choosing For Dropship:
ধরে নিচ্ছি আপনি #yoga নিশ পছন্দ করছেন। এবার আপনাকে একটা ডোমেইন ও হোস্টিং নিতে হবে। মনে রাখবেন আপনার নিশের সাথে মিল রেখে ডোমেইন কিনবেন (e.g: yogaworld.com or yogazone.com)
ডোমেইন কেনার সময় অবশ্যই দেখে নেবেন আপনার পছন্দকৃত ডোমেইনটি #expired কিনা, ডোমেইনটি #blacklisted কিনা? যদি কেউ আপনার পছন্দকৃত ডোমেইনটি আগে থেকে ব্যবহার করে থাকেন তবে সেটি কি পরিমান ব্যাকলিংক করছিল বা এরর আছে কিনা। (এগুলো চেক করার জন্য গুগল বা ইউটিউব দেখতে পারেন। অনেক ফ্রি টুলস আছে যেগুলো আপনাকে সকল তথ্য দিয়ে দেবে) আর যদি একদম ফ্রেশ হয় তবেতো কোন কথাই নেই।
তবে মনে রাখবেন ডোমেইনে যেন নিশের নামটা থাকে।
এবার আসি হোস্টিং বিষয়ে, অবশ্যই ভাল কোন হোস্টিং প্রোভাইডারের নিকট হতে হোস্টিং নেবেন। আপনার সাইটে প্রচুর ট্রাফিক আসবে ইনশাআল্লাহ তখন কিন্তু সাইট ডাউন হয়ে যেতে পারে ।
একটা ভাল প্লান পছন্দ করবেন হোস্টিং এর জন্য। আমি রিকমান্ড করব হোস্টগেটর বা নেইমচিপ, হোস্টিং সার্ভিস এদের নিকট থেকে নিতে পারেন। অনেক ভাল ভাল প্লান আছে তাদের।

এবার আপনি #wordpress install করবেন আপনার সাইটের জন্য hosting cpanel এ গিয়ে। ভাল একটা ecommerce theme install করবেন সাইটে। Theme কিনে নিতে পারেন themeforest.com থেকে অথবা ফ্রিতে কিছু পেলে সেটাও ব্যবহার করতে পারেন (তবে মনে রাখবেন ফ্রি জিনিস কিন্তু আপনার সর্বনাশ করতে পারে- bug থাকে।
Theme install হয়ে গেলে আপনার মনের মতন করে customize করে নেবেন থিম কে। আরো খেলা বাকি আছে। এবার আপনার সাইটের ড্যাশবোর্ডের settings এ গিয়ে search engine crawl stop করে দেবেন।

Plugin Which Required For DropShipping:
Dropship store এর জন্য কিছু প্লাগিন দরকার হবে।  বলে রাখা ভাল বেশিরভাগ প্লাগিন ফ্রিতেই পাবেন তবে কিছু প্লাগিন কিন্তু পেইড সেগুলোও ফ্রিতে #nulled_version অনেক সাইটে পেয়ে যাবেন শুধু দরকার একটু সার্চ করা, nulled ব্যবহার না করাই ভাল এতে ভবিষ্যতে সাইটের ক্ষতি হতে পারে(হ্যাক)। প্লাগিন কিভাবে install করবেন আপনার wordpress সাইটে সে বিষয়ে youtube এ যথেস্ট ভিডিও আছে।
1. Woocommerce
2. Wooswatches
3. Wooimporter
4. YITH woocommerce ajax search
5. YITH woocommerce product filter
6. YITH woocommerce wish list
7. SSL Insecure content Fixer
8. Visual composer (wp bakery)
9. Akismet anti spam
10. Jetpack by wordpress.com
11. Pixel your site
12. Contact From 7

Source: https://bit.ly/3f8ZR9H

 200 Views

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

0
    0
    Your Bag
    Your cart is emptyReturn to Shop
    Scroll to Top